৫৪ কার্যদিবসে সর্বনিম্ন লেনদেন ডিএসইতে

টানা দুই কার্যদিবস বড় দরপতনের পর সোমবার উভয় শেয়ারবাজারে মূল্যসূচক ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় ফিরেছে। তবে প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে লেনদেন খরা অব্যাহত রয়েছে। ধারাবাহিকভাবে লেনদেন কমতে থাকায় বাজারটিতে ৫৪ কার্যদিবসের মধ্যে সর্বনিম্ন লেনদেন হয়েছে। 

দিনের লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স বেড়েছে ৪০ পয়েন্ট। অপর বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সিএসসিএক্স সূচক বেড়েছে ৮৯ পয়েন্ট। 

অন্যদিকে ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৫৭৬ কোটি ২২ লাখ টাকা। যা আগের কার্যদিবসের তুলনায় ১০১ কোটি ৭৪ লাখ টাকা কম। এদিন লেনদেন কমার মধ্যদিয়ে বাজারটিতে টানা ১০ কার্যদিবস লেনদেন কমলো। 

সোমবারের লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স ৪০ পয়েন্ট বেড়ে ৫ হাজার ৩৬৩ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ৩২৫টি কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিটের মধ্যে ২২৩টির দাম বেড়েছে। অপরদিকে কমছে ৭১টির এবং অপরিবর্তীত আছে ৩১টির দাম।

টাকার অঙ্কে ডিএসইতে সবচেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে সাইফ পাওয়ারের শেয়ার। এদিন কোম্পানির ৩৫ কোটি ৫১ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। লেনদেনে দ্বিতীয় স্থানে থাকা লংকাবাংলা ফিন্যান্সের ৩২ কোটি ৯৮ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ২১ কোটি ৫০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনে তৃতীয় স্থানে রয়েছে অ্যাপোল ইস্পাত।

লেনদেনে এরপর রয়েছে- আরএসআরএম স্টিল, এসিআই ফর্মুলেশন, বেক্সিমকো, ইসলামী ব্যাংক, বারাকা পাওয়ার, জেএমআই সিরিঞ্জ এবং ইবনে সিনা।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সিএসসিএক্স মূল্যসূচক ৮৯ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১০ হাজার ৫৭ পয়েন্টে। বাজারটিতে ৪৬ কোটি ৭১ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। লেনদেন হওয়া ২৫১টি ইস্যুর মধ্যে দাম বেড়েছে ১৬৪টির, কমেছে ৫৮টির এবং অপরিবর্তীত রয়েছে ২৯টির।

0 মন্তব্য(গুলি)

Write Down Your Responses

Related Posts Plugin for WordPress, Blogger...