ট্রাম্পবিরোধী বিক্ষোভে গুগলে কর্মরত বাংলাদেশিরাও

সিরিয়াসহ সাতটি মুসলিম দেশের নাগরিকদের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের ক্ষেত্রে সাময়িক নিষেধাজ্ঞার প্রতিবাদে ও ট্রাম্পের বিরুদ্ধে চলমান বিক্ষোভে একাত্মতা প্রকাশ করেছেন গুগল, ফেসবুকসহ মার্কিন প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলো। গুগলে কর্মরত বাংলাদেশি অভিবাসীরাও এই আন্দোলনে যোগ দিয়েছেন।

দুই হাজারেরও বেশি গুগলকর্মী গত সোমবার ট্রাম্পবিরোধী আন্দোলনে নামেন। গুগলার্স ইউনিট হ্যাশট্যাগে তারা আন্দোলনের ছবি ও ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশ করেন। এতে অংশ নেন গুগলের প্রধান কার্যালয়ে কর্মরত বাংলাদেশিরাও।

গুগলে বাংলাদেশি শীর্ষ কর্মী বিকি রাসেল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বলেন, এ ইস্যুতে আমরা গুগলের সব কর্মী একসঙ্গে রয়েছি।

আরেক বাংলাদেশি গুগলকর্মী বলেন, অভিবাসীদের প্রসঙ্গে ডোনাল্ড ট্রাম্পের ঘোষণার সরাসরি প্রতিবাদ জানাই আমরা। আমাদের সহকর্মী যারা এ ঘটনায় বিপদের মুখে আছে তাদের সঙ্গে আমরা আছি।

গুগলের সহ-প্রতিষ্ঠাতা সার্জিও ব্রিন এবং প্রধান নির্বাহী ভারতীয় বংশোদ্ভূত সুন্দর পিচাই বলেছেন, অভিবাসী প্রসঙ্গে লড়াই অব্যাহত থাকবে। 

প্রসঙ্গত, মুসলিমপ্রধান দেশের অভিবাসীদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা দিয়ে গত সপ্তাহে ট্রাম্প নির্বাহী আদেশ জারি করার পর থেকেই আন্দোলনে উত্তাল হয়ে উঠেছে যুক্তরাষ্ট্র। বিশেষত নিউইয়র্ক, লস অ্যাঞ্জেলেস, বোস্টন, টেক্সাসের মতো শহরগুলোর পাশাপাশি দেশটির প্রধান প্রধান বিমানবন্দরগুলোর বাইরে ওই নির্বাহী আদেশ প্রত্যাহারের দাবিতে বিক্ষোভ চলছে।

হোয়াইট হাউস ছেড়ে যাওয়ার ১০ দিন পর অভিবাসন বিষয়ে ট্রাম্পের নীতির বিরুদ্ধে এক বিবৃতিতে ওবামা বলেন, এ ধরনের সিদ্ধান্তে মার্কিন মূল্যবোধ হুমকির মুখে পড়েছে।

0 মন্তব্য(গুলি)

Write Down Your Responses

Related Posts Plugin for WordPress, Blogger...