১০০ বছরের মধ্যে উষ্ণতম বছর ২০১৬

পৃথিবীর উষ্ণতা বেড়েই চলেছে। ১৮৮০-এর দশক থেকে প্রতিবছর পৃথিবীর গড় তাপমাত্রার রেকর্ড রাখা শুরু হয়। আর তখন থেকে এখন পর্যন্ত সবচেয়ে উষ্ণতম বছর ছিল ২০১৬ সাল। অর্থাৎ একশ’ বছরের বেশি সময়ে গত বছরই ছিল সবচেয়ে উষ্ণতম বছর। মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা এ তথ্য জানিয়েছে। 

বুধবার নাসার একটি রিপোর্টে জানানো হয়েছে, ২০১৫ সাল ছিল বিংশ শতাব্দীর উষ্ণতম বছর। ওই বছর পৃথিবীর গড় তাপমাত্রা ছিল ১ দশমিক ৬৯ ডিগ্রি ফারেনহাইট। ২০১৬ সালে গড় তাপমাত্রা বেড়েছে ০.০৭ ডিগ্রি ফারেনহাইট। শুধু যে তাপমাত্রা বেড়েছে তাই নয় পৃথিবীর জলবায়ু এবং প্রাকৃতিক পরিবেশেও ব্যাপক পরিবর্তন এসেছে। 

জাতীয় সমুদ্র এবং আবহমণ্ডল প্রশাসন (এনওএএ)-এর পৃথক একটি সমীক্ষায় দেখা গেছে, গত কয়েক বছরে বরফ গলার পরিমাণও বেড়েছে। মূলত খনিজ তেল এবং প্রাকৃতিক গ্যাসের ব্যবহার বেড়ে যাওয়ার ফলে বাতাসে কার্বন ডাই অক্সাইড, মিথেন এবং অন্যান্য দূষিত পদার্থের পরিমাণ বাড়ছে। 

আর সে কারণেই গ্রীন হাউস গ্যাসও বায়ুস্তরে বেড়ে চলেছে। ফলে গোটা বিশ্বের তাপমাত্রা বাড়ছে। এছাড়া প্রশান্ত মহাসাগর এলাকায় এল নিনোর প্রভাবেও তাপমাত্রা বেড়েছে। নাসার জানিয়েছে, তাপমাত্রা বাড়লে দুই মেরুর বরফ গলার পরিমাণও বাড়তে থাকে। 

এছাড়া বিশ্বের প্রতিটি জায়গায় তাপমাত্রার তারতম্যও দেখা যায়। কোথাও বেশি বৃষ্টি আবার কোথাও খরা। ফলে পরিবেশের ভারসাম্য নষ্ট হতে দেখা যায়। বিশ্বায়নের ফলে কলকারখানার পরিমাণ বৃদ্ধি, বনজঙ্গল কেটে ফেলাও পৃথিবীর গড় তাপমাত্রা বৃদ্ধির অন্যতম কারণ বলে মনে করা হচ্ছে।

0 মন্তব্য(গুলি)

Write Down Your Responses

Related Posts Plugin for WordPress, Blogger...