মির্জাপুরে নৌকাডুবিতে একই পরিবারের তিনজনের মৃত্যু

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে কোনাই নদীতে নৌকা ডুবে একই পরিবারের তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার বেলা ১১টার দিকে মরদেহগুলো উদ্ধার করেছেন মির্জাপুর ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা।

শুক্রবার রাত সাড়ে দশটার দিকে মির্জাপুর উপজেলার লতিফপুর ইউনিয়নের সলিমনগর কোনাই নদীর খেয়া ঘাটে এ নৌকাডুবির ঘটনা ঘটে। 

নিহতরা হলেন, মির্জাপুর উপজেলার তরফপুর ইউনিয়নের কদমা গ্রামের মৃত ছানোয়ার হোসেনের স্ত্রী ফুল খাতুন বেওয়া (৭৫), তার ছেলে মো. আনোয়ার হোসেন (৫০) ও আনোয়ারের স্ত্রী ফরিদা বেগম (৪২)। 

Mirzapur

জানা গেছে, শুক্রবার ভগ্নীপতির মৃত্যু খবর পেয়ে আনোয়ার হোসেন তার স্ত্রী ফরিদা বেগম ও মা ফুল খাতুনকে নিয়ে এ উপজেলার গোড়াই ইউনিয়নের রানাশাল গ্রামে বোনের বাড়ি যান। শুক্রবার রাতে দাফন শেষে স্ত্রী ও মাকে নিয়ে আনোয়ার হোসেন বাড়ির উদ্দ্যেশে রওনা করেন। 

রাত সাড়ে দশটার দিকে সলিমনগর গ্রামের কোনাই নদীর ঘাটে পারাপারের জন্য অপেক্ষা করতে থাকেন। ঘাটে মাঝি না পেয়ে পারে বাধা একটি নৌকায় তারা তিনজনসহ দশজন পার হওয়ার চেষ্টা করেন। এসময় ঘন কুয়াশার কারণে তারা সঠিক পথ দেখতে না পেয়ে নৌকাটি নিয়ে অন্যত্র চলে যেতে থাকে। এসময় হঠাৎ নৌকা ডুবে যায়। 

নৌকার মধ্যে থাকা অপর সাতজন সাঁতরিয়ে পারে উঠতে পারলেও তারা তিনজন ডুবে যান। খবর পেয়ে মির্জাপুর ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা ঘটনাস্থলে গিয়ে উদ্ধার কাজ চালিয়ে এক ঘণ্টা পর বৃদ্ধা ফুল খাতুনের মরদেহ উদ্ধার করেন। 

পরে শনিবার সকালে ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা পুণরায় উদ্ধার কাজ চালিয়ে সাড়ে দশটার দিকে আনোয়ার হোসেন ও সাড়ে এগারটার দিকে ফরিদা বেগমের মরদেহ উদ্ধার করেন বলে ফায়ার স্টেশনের স্টেশন অফিসার মো. আতাউর রহমান নিশ্চিত করেন। 

0 মন্তব্য(গুলি)

Write Down Your Responses

Related Posts Plugin for WordPress, Blogger...