বাড্ডায় স্বামীকে হত্যার পর স্ত্রীর আত্মসমর্পণ

রাজধানীর মধ্যবাড্ডার আদর্শনগরে স্বামী ফজল শেখের (৫০) মাথা থেতলিয়ে এবং লিঙ্গ কর্তন করে হত্যা করেছে স্ত্রী চন্দ্রবাহার বেগম। 

ঘটনার পর ঘাতক চন্দ্রবাহার নিজেই থানায় গিয়ে পুলিশের কাছে হত্যার দায় স্বীকার করে আত্মসমর্পণ করেছে। বৃহস্পতিবার সকাল আটটার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

বাড্ডা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল জলিল ‍জানান, চন্দ্রবাহার বেগমকে বিয়ের পর ফজল শেখ আরও দুই বিয়ে করেন। এ নিয়ে তাদের মাঝে পারিবারিক কলহ লেগেই থাকতো। এরই জের ধরে চন্দ্রবাহার বেগম স্বামীর মাথায় আঘাত ও পরে লিঙ্গ কর্তন করে।

ওসি আরও জানান, খবর পেয়ে পুলিশ সকাল সাড়ে ৮টায় ঘটনাস্থলে গিয়ে ফজল শেখকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে থানায় এসে স্ত্রী আত্মসমর্পণ করে। তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন আছে।

0 মন্তব্য(গুলি)

Write Down Your Responses

Related Posts Plugin for WordPress, Blogger...