‘শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাব হবে ২০০১ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে

প্রতিটি জেলা সদরে একটি করে মোট ৬৫টি ভাষা প্রশিক্ষণ ল্যাবসহ সারা দেশের দুই হাজার একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে স্থাপন করা হয়েছে ‘শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাব’।  শনিবার (১৩ আগস্ট) দুপুরে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এসব ল্যাবের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।  তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় জানায়, শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাবের মাধ্যমে প্রতিবছর ১০ লাখ শিক্ষার্থী আইসিটি শিক্ষায় শিক্ষিত হওয়ার সুযোগ পাবে।  শিক্ষার্থীদের আইসিটি ক্ষেত্রে সামর্থ্য বাড়ানো ও ব্যাপক কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করবে এসব ল্যাব।  প্রতিটি ল্যাব মাল্টিমিডিয়‍া ক্লাসরুম, সাইবার সেন্টার ও ট্রেনিং ল্যাব হিসেবে ব্যবহৃত হবে। এখানে শিক্ষার্থী ছাড়াও আগ্রহী তরুণ-তরুণীরা আইটি বিষয়ে প্রশিক্ষণ নিতে পারবেন।  ২০ জন শিক্ষার্থী বসার মতো ল্যাব কক্ষ বরাদ্দ করা হয়েছে প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে।  অন্যদিকে ভাষা প্রশিক্ষণ ল্যাবগুলোতে থাকবে বিশ্বের প্রধান ৯টি ভাষা শেখার সুযোগ। এগুলো হচ্ছে- ইংরেজি (আমেরিকান, ব্রিটিশ ও অস্ট্রেলিয়ান), চীনা, কোরিয়ান, জাপানিজ, ফরাসি, স্প্যানিশ, জার্মান, আরবি ও রুশ।  প্রতিটি ল্যাবে আইটি সরঞ্জামের মধ্যে থাকবে ১৭টি কম্পিউটার, একটি লেজার প্রিন্টার, একটি স্ক্যানার, একটি মাল্টিমিডিয়া প্রজেক্টর (স্ক্রিনসহ), দ্রুত গতির ইন্টারনেটের জন্য থাকবে থ্রি-জি রাউটার ও প্রয়োজনীয় আসবাবপত্র।  ভাষা প্রশিক্ষণ ল্যাবগুলোতে বাড়তি হিসেবে থাকবে ভাষা ওপর প্রশিক্ষণ সফটওয়ার ও কনটেন্ট এবং হেড ফোন।  ডিজিটাল ল্যাবগুলো সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার জন্য প্রতিটি নির্বাচনী এল‍াকার সংসদ সদস্য (এমপি), জেলা প্রশাসক, উপজেলা চেয়ারম্যান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও), পৌর কাউন্সিলর, উপজেলায় নিয়োজিত আইসিটি অধিদফতরের সহকারী প্রোগ্রামার ও উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসারের সমন্বয়ে গঠিত হবে শক্তিশালী উপদেষ্টা কমিটি।  তৃণমূল পর্যায়ে আইসিটি জ্ঞান সম্প্রসারণে দেশের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কম্পিউটার ও ভাষা প্রশিক্ষণ ল্যাব স্থাপন প্রকল্পের আওতায় এসব কম্পিউটার ল্যাব স্থাপন করা হয়।  ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টের শোকাবহ ইতিহাস ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ঠ সন্তান শেখ রাসেলের স্মরণে কম্পিউটার ল্যাবগুলোকে ‘শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাব’ নামে নামকরণ করা হয়েছে।  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন,‘উন্নত সমৃদ্ধ ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে আরও এক ধাপ এগিয়ে গেলো দেশ।’  তথ্য-প্রযুক্তি জ্ঞানের ওপর গুরুত্বারোপ করে তিনি বলেন, প্রতিযোগিতাপূর্ণ বিশ্বে আমাদের শিক্ষার্থীরা তথ্য-প্রযুক্তি জ্ঞান অর্জন করে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবে।  ডিজিটাল সেন্টারের মতো শেখ রাসেল ডিজিটাল ল্যাবগুলোও কর্মসংস্থান সৃষ্টির পাশাপাশি আইসিটি ক্ষেত্রে দক্ষ জনশক্তি তৈরিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে আশা প্রকাশ করেন শেখ হাসিনা।

,

0 মন্তব্য(গুলি)

Write Down Your Responses

Related Posts Plugin for WordPress, Blogger...